জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অনার্স ১ম বর্ষ পরীক্ষার ফলাফল ২০১৯ দেখুন এখানে – অনার্স ১ম বর্ষ রেজাল্ট ২০১৯

অনার্স ১ম বর্ষ পরীক্ষার রেজাল্ট ২০২০ঃ জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের নিয়মিত এবং ২০১৭-১৮, ২০১৬-১৭ ও ২০১৫-১৬শিক্ষাবর্ষের অনিয়মিত ও গ্রেড উন্নয়ন এবং ২০১৪-১৫ ও ২০১৩-১৪ শিক্ষাবর্ষের শুধুমাত্র Promoted শিক্ষার্থীগণের F গ্রেড প্রাপ্ত কোর্সের অনার্স ১ম বর্ষ পরীক্ষার ফলাফল ২০১৯ প্রকাশ সংক্রান্ত বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ হয়েছে। প্রকাশিত বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে ২০১৯ সালের অনার্স ১ম বর্ষ পরীক্ষার ফলাফল ০৬ জানুয়ারি ২০২০ তারিখ সন্ধ্যা ৭টায় প্রকাশ করা হবে। এবার পাসের হার ৮৯ দশমিক ৩০ শতাংশ। 

প্রকাশিত ফলাফলে কোন প্রকার অসঙ্গতি বা ভুলত্রুটি পরিলক্ষিত হলে তা সংশোধন, সংযোজন অথবা সম্পূর্ণ বাতিল করার ক্ষমতা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ সংরক্ষণ করে বলে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক বদরুজ্জামান কর্তৃক স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে।

ফলাফল সম্পর্কে কোন প্রকার আপত্তি থাকলে সে বিষয়ে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ ১ মাসের মধ্যে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইটের মাধ্যমে আবেদন করতে হবে। উক্ত সময়ের পর ফলাফল সংক্রান্ত কোন ধরনের আপত্তি বা আবেদন কোনভাবেই গ্রহণযোগ্য হবেনা বলেও উক্ত বিজ্ঞপ্তিতে অবহিত করা হয়েছে।

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইটের পাশাপাশি আপনাদের সুবিধার্থে অনার্স ১ম বর্ষের ফলাফল লেখাপড়া বিডি থেকেও দেখা যাবে।

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অনার্স ১ম বর্ষ পরীক্ষার ফলাফল ২০১৯ দেখুন এখান থেকে

মোবাইল থেকে ফলাফল দেখতে সমস্যা হলে এখানে ক্লিক করুন

কলেজ ভিত্তিক ফলাফল দেখুন

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অনার্স ১ম বর্ষ পরীক্ষার ফলাফল ২০১৯

মোবাইলে এসএমএস এর মাধ্যমে ফলাফল দেখার নিয়মঃ

মোবাইলে এসএমএস এর মাধ্যমে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০১৯ সালের অনার্স ১ম বর্ষের ফলাফল দেখতে নিচের নিয়ম অনুসরণ করুনঃ

আপনার মোবাইলের মেসেজ অপশনে গিয়ে লিখুনঃ NU<space>H1<space>আপনার রেজিস্ট্রেশন/রোল নম্বর

উদাহরণঃ NU<space>H1<space>10111868195

এরপর মেসেজটি পাঠিয়ে দেন 16222 এই নম্বরে।

উল্লেখ্য, জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০১৯ সালের স্নাতক (সম্মান) ১ম বর্ষের তত্ত্বীয় বিষয় সমূহের পরীক্ষা সারাদেশে ০১ আগস্ট ২০১৯ তারিখ দুপুর ১ টা থেকে শুরু হয়ে ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৯ তারিখে শেষ হয়। এবার ৮৪৮টি কলেজের ৩১টি বিষয়ে মোট চার লাখ ৭২ হাজার ১২২ জন শিক্ষার্থী ২৯৪টি কেন্দ্রে এ পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে। এর মধ্যে এক লাখ ৪৮ হাজার ৪৯০ জন মানোন্নয়ন পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করেছে।

এ ফলাফল সম্পর্কে কোন পরীক্ষার্থী কিংবা সংশ্লিষ্ট কারো কোন আপত্তি/অভিযোগ থাকলে ফলাফল প্রকাশের এক মাসের মধ্যে অনলাইনে আবেদন করতে হবে। আবেদনের বিস্তারিত পদ্ধতি জানতে এখানে ক্লিক করুন

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের জিপিএ গণনা পদ্ধতি জেনে নিন এখান থেকে।

পোষ্টটি লিখেছেন: আল মামুন মুন্না

আল মামুন মুন্না এই ব্লগে 644 টি পোষ্ট লিখেছেন .

আল মামুন মুন্না, বাংলাদেশের প্রথম শিক্ষা বিষয়ক বাংলা কমিউনিটি ব্লগ সাইট "লেখাপড়া বিডি"র প্রতিষ্ঠাতা ও পরিচালক হিসেবে নিয়োজিত আছেন। জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীন যশোর সরকারী এম. এম. কলেজ থেকে ফিন্যান্স এন্ড ব্যাংকিং বিষয় নিয়ে বি.বি.এ অনার্স ও আজম খান সরকারী কমার্স কলেজ থেকে এমবিএ সম্পন্ন করেছেন।

আমদের ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন পেইজে লাইক দিন গ্রুপে যোগ দিন


One comment

  1. Khub e valo akta site! onek thottho pai. Thanks!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *