এসইও শেখার তাবিজ নিন গলায় ঝুলালেই সমাধান নিশ্চিত

অনেকদিন পরে আবারো লিখতে বসলাম। আজ কিছুটা ভিন্ন বিষয় নিয়ে কথা বলবো। জীবনে অনেক টিপস্ দিয়েছি। অনেক টিউটোরিয়াল দিয়েছি। আজ না হয় সেসকল টিপস্ বাদ দিলাম। হাতে যদি সময় থাকে তাহলে কষ্ট করে পড়ে নিন। আশা করি লসের থেকে লাভই বেশি হবে। আজকের মূল প্রতিপাদ্য বিষয় হলো, কিভাবে এসইও শিখবেন। কাউকে ছোট করা আমার উদ্দেশ্য নয়। 

১. অনেকেই এসইও শেখার জন্য একজন এক্সপার্ট খুজে বেড়ান। তবে দু:খের বিষয় হলো, আপনি কখনোই এসইও শেখার জন্য এসইও এক্সপার্ট খুজে পাবেন না। কারন একজন এক্সপার্টের সে সুযোগ নেই যেখানে আপনাকে সময় দেবে। কারন যে সময় আপনার পিছনে ব্যয় করবে সে সময়ে আপনি যা পেমেন্ট করবেন তার কয়েকগুন সে ইনকাম করে। একজন এক্সপার্ট যদি মার্কেট প্লেসেও কাজ করে তার মিনিমাম পেমেন্ট ঘন্টায় ১০-১৫ ডলার। যা গড়ে প্রায় ১০০০ টাকার উপরে। তার মানে কেউ যদি আপনাকে মোট ৩০ দিন ১ ঘন্টা করে সময় দেয় তাহলে তাকে আপনাকে কমপক্ষে ৩০ হাজার থেকে ৫০ হাজার টাকা দিতে হবে। যে টাকাটা অনেকের জন্যই দেয়াটা সম্ভব হয়না। যদিও বিশ্বের বড় বড় এক্সপার্টদের পেমেন্ট হাই।

২. বিডিতে হাতে গোনা কয়েকজন এসইও এক্সপার্ট এসইও শেখায়। তবে তারা কেউ প্রাকটিক্যাল শেখায় না। কিছু প্রিমিয়াম টিউটোরিয়াল করে রেখেছে। সেটা দেখে আপনাকে কষ্ট করে নিজেকেই শিখে নিতে হবে। মাঝে মাঝে তারা সাপর্ট দেবে। আর এই টিউটোরিয়ালের মূল্য ১৫ থেকে ৩০ হাজার টাকা। আর সাথে বিভিন্ন সার্ভিস তো আছেই।

৩. এসইও সবাই শেখাতে পারে, এটা কোন কঠিন কাজ নয়। আমার যতগুলো টিউটোরিয়াল আছে তা ভালোভাবে দেখে কেউ যদি কাজ শুরু করে তাহলে অবশ্যই সে এসইও শিখতে পারবে। কিন্তু সে সব টিউটোরিয়ালেও কোন প্রাকটিক্যাল ধারনা পাবেন না। সেটা নিজেকেই শিখে নিতে হবে প্রাকটিস করে। প্রাকটিক্যাল দেখানো সম্ভব হয়নি কারন আমিতো জানি না আপনি কোন নিশ নিয়ে কাজ করেন, কাদের হোষ্টিং নিয়েছেন, কোন সিএমএস ইউজ করেন, কোন থিম ইউজ করেন। আমি না হয় হেল্থ নিয়ে একটি প্যাকটিক্যাল প্রজেক্ট দেখালাম। কিন্তু আপনার নিশতো হেল্থ নাও হতে পারে। প্রতিটা নিশের জন্য, প্রতিটা সিএমএস এর জন্য, প্রতিটা দেশের জন্য আলাদা আলাদা স্ট্রাটিজি ফলো করতে হবে।

৪. এসইও এমন কোন বিষয় নয় যে ১০টি টিউটোরিয়াল দেখলাম আর শেখা হয়ে গেলো। এটা শেখার জন্য যদি সারাজীবন ব্যয় করেন তবুও শেখা শেষ হবে না। বিদেশে এসইওর উপার উচ্চ শিক্ষা রয়েছে। এসইও মানে এলগারিদমের সাথে প্রতিনিয়ত যুদ্ধ করা, কম্পিটেটরের সাথে সংঘর্ষ করা। আর এই দুইটা বিষয়ের একটাকে অবহেলা করবেন তো আপনি পিছিয়ে পড়বেন। যা আপনাকে নিজে নিজেই খেয়াল রাখতে হবে। কোন এক্সপার্ট আপনাকে সবসময় মনিটরিং করবে না। কারন তার টিউটোরিয়াল সেল শেষ তার কাজও শেষ।

৫. এসইও শিখতে হলে আপনাকে মাঠে নামতে হবে। নিজেকে কাজ করতে হবে। প্রতিনিয়ত গবেষনা করতে হবে। যখনেই আপনি কোথাও ঠেকে যাবেন তখনই সেটা শিখতে পারবেন। একজন এসইও এক্সপার্ট কি করে বুঝবে আপনি কোথায় দুর্বল? সেই দূর্বলতা খুজে বের করতে আপনাকে নিজেকেই কাজ করতে হবে। বিপদে পড়লে এক্সপার্টকে কেবল প্রশ্ন করতে পারেন। সে আপনাকে হয়তো দু একটা টিপস্ দেবে। বাকি কাজ কিন্তু আপনাকেই করতে হবে।

৬. আমি কোন টিউটোরিয়াল কেনার বিপক্ষে কথা বলছি না। প্রতিটা এক্সপার্টদেরই আলাদা আলাদা ট্রিক্স থাকে। এসব টিউটোরিয়াল কিনলে আপনার নলেজ অবশ্যই বাড়বে। কিন্তু দিন শেষে নিজের জন্য কিন্তু নিজেকেই কাজ করতে হবে। কোন এসইও এক্সপার্ট কিন্তু করে দেবে না।

৭. আমার Jobayer Academy গ্রুপের কয়েকজনকে বলতে শুনেছি, X প্রতিষ্ঠান বা X ভাই তার টাকা মেরে দিয়েছে, Y প্রতিষ্ঠানে শিখেছি কিন্তু কিছুই শেখায়নি। আমি তাদেরকে প্রথমেই প্রশ্ন করি কতটাকা দিয়ে শিখেছেন? বেশিরভাগই বলেছেন, ২০০০ টাকা, কেউ বলেন ৩০০০ টাকা, আবার কেউ কেউ বলেন ১০০০ টাকা। তাদেরকে এই লেখার মাধ্যমে বলতে চাই- ১ নম্বর পয়েন্টে যে হিসেব দেখিয়েছি সেখানে আদৌ কি ১০০০ টাকায় এসইও শেখা সম্ভব? শেখালেও কারা শেখাচ্ছেন? সেসকল প্রতিষ্ঠান জীবনে কতটা প্রজেষ্ট নিয়ে কাজ করেছেন? কয়টা কি ওয়ার্ড জীবনে রেংক করিয়েছেন? আর অনলাইন থেকে কতটাকাই বা ইনকাম করেছেন?

যাই হোক, সকল কথার এক কথা হলো, এসইও শেখার কোন তাবিজ আমার কাছে নেই, অন্য কারো কাছে আছে কিনা জানি না। তবে এতটুকু জানি, শিখতে হলে প্রচুর পরিশ্রম করতে হবে। নিজে নিজে পরিশ্রম করতে হবে। যেখানে মাত্র ১০ হাজার টাকার চাকরী পেতে ২০ বছর পড়াশুনা করেন সেখানে এসইও শিখে তিন দিনেই মাসে ১০ টাকার উপরে ইনকাম করবেন সেটা কি কখনো সম্ভব? যাদের হাতে কমপক্ষে ৬ মাস সময় আছে তারা অন্তত চেষ্টা করে দেখতে পারেন। সঠিক ভাবে পরিশ্রম করলে হয়তো আরো কম সময় লাগবে।

আজকের মতে তাহলে এই পর্যন্তই, কষ্ট করে পড়ার জন্য সবাইকে ধন্যবাদ। চাইলে আমার ফেসবুক গ্রুপটা ঘুরে দেখতে পারেন।

লিংক- জোবায়ের একাডেমি

পোষ্টটি লিখেছেন: jobayer09

Jobayer Rahman এই ব্লগে 10 টি পোষ্ট লিখেছেন .

আমদের ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন পেইজে লাইক দিন গ্রুপে যোগ দিন


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *