সরকারি বেতন চালুর দাবিতে সাভারে শিক্ষার্থীদের মহাসড়ক অবরোধ, বিক্ষোভ

নতুন গেজেটভুক্ত হওয়া দেশের ২৭১টি কলেজে অবিলম্বে সরকারি বেতন চালুর দাবিতে সাভারে ঢাকা-আরিচা মহাসড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেছে কলেজ শিক্ষার্থীরা। গতকাল বুধবার দুপুরে দ্বিতীয় দিনের মতো সাভার সরকারি কলেজের দুই শতাধিক শিক্ষার্থী কলেজক্যাম্পাস থেকে বিক্ষোভ মিছিল বের করে ঢাকা-আরিচা মহাসড়কে অবস্থান নেয়। এসময় তারা সারাদেশে সদ্য জাতীয়করণকৃত কলেজ সমূহে সরকারী বেতন কার্যকরের দাবীতে বিভিন্ন স্লোগান দিয়ে এক ঘণ্টা মহাসড়কটি অবরোধ করে রাখে। এসময় মহাসড়কের দুপাশে দীর্ঘ যানজটের সৃষ্টি হয়।

বিক্ষোভরত শিক্ষার্থীরা বলেন, দীর্ঘ প্রায় আট মাস অতিবাহিত হলেও এখন পর্যন্ত নতুন গেজেটভুক্ত হওয়া দেশের ২৭১ টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সরকারি বেতন চালু করা হয়নি। কলেজ গুলো নামেমাত্র সরকারি করা হয়েছে, কিন্তু সরকারি নিয়মে কোন আর্থিক কার্যক্রম পরিচালিত হচ্ছে না। নামে সরকারী বলা হলেও বেসরকারী হিসেবেই শিক্ষার্থীদেরকে বেতন, পরীক্ষার ফিসহ সকল প্রকার শিক্ষা ব্যয় পরিশোধ করতে হচ্ছে। ছাত্রছাত্রীরা সরকারি প্রতিষ্ঠান জেনে ভর্তি হলেও কোন প্রকার সরকারি সুবিধা পাচ্ছে না।

ফলে অর্থের অভাবে অনেক দরিদ্র ছাত্রছাত্রীদের লেখাপড়া বন্ধ হয়ে যাচ্ছে। এসময় শিক্ষার্থীরা নতুন গেজেটভুক্ত হওয়া ২৭১টি কলেজে দ্রুততম সময়ের মধ্যে সরকারি বেতন কার্যকরের দাবী জানিয়ে প্রধানমন্ত্রীর দৃষ্টি আকর্ষন করেন।

একাধিক ছাত্র ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন- আমরা যখন প্রথম বর্ষে ভর্তি হই তখন জেনেছি কলেজটিতে সরকারীকরণের প্রক্রিয়া চলছে। অবশেষে গত বছর সাভার কলেজসহ দেশের ২৭১টি কলেজকে জাতীয়করণ করে গেজেট প্রকাশ করা হয়। কিন্তু দীর্ঘদিন পেড়িয়ে গেলেও কলেজ গুলো সরকারি নিয়মে পরিচালিত হচ্ছে না। আমাদের কাছ থেকে এখনও বেসরকারী কলেজের ন্যায় বেতন গ্রহন করা হচ্ছে।

শিক্ষার্থীদের আন্দোলন বিষয়ে সাভার উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মোছাঃ কামরুন্নাহার বলেন, নতুন গেজেটভুক্ত হওয়া কলেজগুলোতে সকল সরকারি সুযোগ-সুবিধা চালুর বিষয়টি
প্রক্রিয়াধীন রয়েছে। একটি নির্দিষ্ট প্রক্রিয়ার মধ্য দিয়েই কলেজগুলোতে সরকারি বেতনসহ যাবতীয় বিষয় সমূহ বাস্তবায়ন হবে। যদিও এটি খানিকটা সময় সাপেক্ষ। সরকার বিষয়টি অবগত আছে এবং তা বাস্তবায়নের কার্যক্রম চলমান ।

উল্লেখ্য, গত বছরের ৮ আগস্ট নতুন করে দেশের ২৭১টি কলেজ সরকারিকরণে চূড়ান্ত অনুমোদন দেন প্রধানমন্ত্রী। প্রধানমন্ত্রীর চূড়ান্ত অনুমোদনের পর গত বছরের ১২ আগস্ট শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগ থেকে এ সংক্রান্ত প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়। কিন্তু এখন পর্যন্ত এসব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষার্থীদের জন্য সরকারি বেতন চালু করা হয়নি।

পোষ্টটি লিখেছেন: Jillur_Rahman

এই ব্লগে এটাই এর প্রথম পোষ্ট.

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *