অনুগল্পঃ অন্তহীন ভালবাসা – লেখকঃ মোঃ মশিউর রহমান

অনুগল্প। চক বাজারের ঘটে যাওয়া কাহিনি অবলম্বনে।

রিফাত ও রিয়ার বন্ধুত্ব দীর্ঘ দিনের। সারা জীবন এক সাথে কাটিয়ে দিতেই দুই বছর পূর্বে বিয়ে। সুখের স্বর্গে ছিল তাদের বসবাস। ঢাকার চকবাজারে তিন তলার একটি ভবনে ছিল তাদের সুখের রাজ্য। স্ত্রী রিয়া অন্তঃসত্ত্বা। তাদের সংসারে নতুন অতিথি আসার খবরে তারা ছিল আবেগাপ্লুত। কিন্তু সেই সুখ আগুনের লেলিহান শিখায় বিলিন হয়ে গেল।

সেদিন রাতে হয়ত দুজন তাদের অনাগত সন্তানের কথাই ভাবছিলেন। কিন্তু হঠাৎ বাহিরে বিকট আওয়াজ। বারান্দায় দাড়িঁয়ে দুজন যা দেখলেন তা বলার ভাষা নেই। বাহিরে চতুর্দিকে আগুনের লেলিহান শিখা। বিকট আওয়াজ। চতুর্দিক ধোয়ায় অন্ধকার। বাহিরে কিছুই দেখা যাচ্ছিলনা। রিয়ার শারীরিক অসুস্থতায় বেশি দূর হাটতে পারে না। সিড়ি বেয়ে নিচে নামতে পারে না। রিয়া তার স্বামীকে দ্রুত বাহিরে বের হবার জন্যে ঠেলে দিচ্ছিল। বলেছিল তুমি জান রক্ষা করো। আমার কথা চিন্তা করো না। কিন্তু প্রিয়তমাকে আগুনের ভিতর রেখে রিফাত কি বাহিরে যেতে পারে।

এরই মধ্যে আত্মীয় স্বজনের সাথে ফোনে কথা বলেছে রিফাত। রিফাতকে সবাই দ্রুত বের হবার জন্যে বলল। কিন্তু সে সিদান্তে অটল৷ ভালোবাসার মানুষটিকে মৃত্যুর মুখোমুখি রেখে বের হবে না। তারা জানে কিছুক্ষন পরেই মৃত্যু তাদের গ্রাস করে ফেলবে। কিন্তু স্ত্রীর প্রতি দায়িত্বশীলতা, গভীর ভালোবাসা তাকে রিয়ার কাছ থেকে বিচ্ছিন্ন করতে পারে নি।

রাত বারোটায় তাদের মোবাইল ফোন বন্ধ পাওয়া যায়। তার পরের ঘটনা তো হৃদয় বিদারক। বিভীষিকাময়। দুজন এক সাথেই মৃত্যুকে আলিঙ্গন করেছেন। রিফাত ও রিয়ার দেহাবশেষ খুঁজে পাওয়া যায় নি। আগুনে পুড়ে ছাই হয়ে গিয়েছে। মানবসৃষ্ট দূর্যোগে তাদের মতো কোন দম্পতির পৃথিবী থেকে বিদায় নেয়ার গল্প আমরা আর দ্বিতীয়টি শুনতে চাই না।

সৃষ্টি কর্তার কাছে প্রার্থনা পরপারে তাদের স্থান যেন স্বর্গেই হয়।

পোষ্টটি লিখেছেন: আব্দুস সামাদ আফিন্দী নাহিদ

আব্দুস সামাদ আফিন্দী নাহিদ এই ব্লগে 28 টি পোষ্ট লিখেছেন .

বাংলাদেশের প্রথম শিক্ষা বিষয়ক বাংলা কমিউনিটি ব্লগ সাইট "লেখাপড়া বিডি"র নিয়মিত পাঠক ও লেখক হিসেবে ২০১৮ সাল থেকে নিয়োজিত আছেন। বর্তমানে জামালগঞ্জ সরকারি কলেজে ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগে লেখাপড়া করছেন। তিনি সবুজ বিডি ও স্বদেশ নিউজ দুইটি অনলাইন পত্রিকায় সাংবাদিকতায় নিয়োজিত আছেন।

আমদের ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন পেইজে লাইক দিন গ্রুপে যোগ দিন


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *