অনলাইন কেনাকাটায় কিভাবে খরচ কমাবেন?

বিশ্বের অন্যান্য দেশের মত বাংলাদেশেও অনলাইন কেনাকাটা বেশ জনপ্রিয় হয়ে উঠছে।  ঘরে বসে দেশের যে কোন প্রান্ত থেকে কেনাকাটা করা যাচ্ছে বেশ সহজেই। চলুন জেনে আসি কিভাবে অনলাইন কেনাকাটায় খরচ বাঁচানো যায়।

১। দাম তুলনা করুনঃ অনলাইন একই পণ্য আলাদা আলাদা সাইটে বিভিন্ন দামে বিক্রি হয়। তাই কোন পণ্য কেনার আগে অবশ্যই দুই-তিনটি সাইট ঘুরে যে সাইটে দাম কম সেখান থেকে কিনুন। অনেক দেশেই দাম তুলনা বা Price Compare এর জন্য সাইট আছে। যেমনঃ Shopping.com, PriceGrabber.com. বাংলাদেশে তেমন কোন ভাল সাইট নেই দাম তুলনা করার জন্য। তবে Dam.com.bd সম্ভবত এই কাজটি শুরু করেছে।

২। ফ্রি শিপিংঃ অনলাইন কেনাকাটার একটা সমস্যা হল পণ্যের ডেলিভারি চার্জও ক্রেতাকেই পরিশোধ করতে হয়। যা কোম্পানী ভেদে ৬০-১০০ টাকা পর্যন্ত হয়। কিন্তু বেশীরভাগ অনলাইন শপই নির্দিষ্ট পরিমাণ কেনাকাটা করলে ডেলিভারি চার্জ ফ্রি করে দেয়। তাই আপনিও চাইলে এই সুযোগটি গ্রহণ করতে পারেন। যখনই অনলাইনে কেনাকাটা করবেন চেষ্টা করুন প্রয়োজনীয় সব একবারে কিনতে। এর ফলে ডেলিভারির অতিরিক্ত টাকা বাঁচাতে পারবেন।

৩ । কুপন বা ডিস্কাউন্ট কোডঃ অনলাইন কেনাকাটায় খরচ বাঁচানোর সবচেয়ে ভাল উপায় হচ্ছে কুপন কোড। কুপন কোড হচ্ছে ইংরেজি বর্ণ সংখ্যার সংমিশ্রণে তৈরি একটি কোড, যা অনলাইনে দাম পরিশোধের সময় চেক আউট পেইজে নির্দিষ্ট বক্সে প্রবেশ করালে একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ ছাড় পাওয়া যায়।

অনলাইন কেনাকাটায় কিভাবে খরচ কমাবেন?

প্রত্যেকটি অনলাইন শপই নিজেদের মার্কেটিং এর জন্য বা ক্রেতা বৃদ্ধির জন্য কুপন কোড দিয়ে থাকে। যেমন: Bagdoom.com তাদের নিউজলেটার সাবস্ক্রাইব করলে ৩০০ টাকার কুপন কোড দিয়ে থাকে।

অনলাইন কেনাকাটায় কিভাবে খরচ কমাবেন?

 

এছাড়া গুগলে সার্চ করে বা বিভিন্ন কুপন সাইটে খুঁজে দেখলেও এসব কুপন পাবেন। বাংলাদেশেও বেশ কয়েকটি কুপন সাইট আছে বর্তমানে।

OfferKey.net এ আপনে পাঠাও / উবার / সহজ সহ সকল রাইড শেয়ারিং  কোম্পানিগুলোর প্রম কোডে পাবেন । 

এছাড়া তাদের সোস্যাল মিডিয়া পেইজগুলোতে বা ফোরামে যুক্ত থাকতে পারেন। সেখানেও অনেক কোম্পানী নিয়মিত তাদের ফ্যানদের জন্য স্পেশাল অফার দিয়ে থাকে।

৪। ডিস্কাউন্ট চাইতে পারেনঃ কোন পণ্য কেনার আগে সেই সাইটের সাপোর্টে কথা বলতে পারেন যে তাদের কোন অফার আছে কিনা বা তারা আপনার জন্য কোন ডিস্কাউন্টের ব্যবস্থা করতে পারবে কিনা। অনেক ক্ষেত্রেই এই পদ্ধতি কাজ করে। আর পণ্যটি যদি কোন ডিজিটাল প্রোডাক্ট হয় যেমনঃ থিম, টেমপ্লেট, ভিডিও, অনলাইন কোর্স ইত্যাদি তাহলে এটি কাজ করার সম্ভাবনা অনেক বেশি। অনেক কোম্পানী প্রথম কেনাকাটায় ছাড় দিয়ে থাকে। তাই এই সুযোগটি কাজে লাগাতে পারেন।

পোষ্টটি লিখেছেন: Offer_Key

এই ব্লগে এটাই এর প্রথম পোষ্ট.

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *