লোহায় মরিচা পড়া রহস্য জানুন

বিজ্ঞান নিয়ে অনেকের মনেই ভয়ভীতি থাকে। জটিল সব সূত্র, গাণিতিক ব্যাখ্যা আর কাঠখোট্টা সব শব্দ শুনলেই কেমন যেন ভয় ভয় লাগে। জটিল সব ঘটনাকে বৈজ্ঞানিক ব্যাখ্যা দিয়ে সহজভাবে তুলে ধরার কাজটিই করছে সায়েন্স রকস টিভি অনুষ্ঠানটি। প্রতি সপ্তাহে ২টি করে ৫২ সপ্তাহে মোট ১০৪টি মজার মজার সায়েন্স এক্সপেরিমেন্ট দেখানো হবে তোমাদের আর বলে দেয়া হবে সেটা কেন হলো, কিভাবে হলো। আজ এক ঝলক জেনে নেয়া যাক সায়েন্স রকস টিভি অনুষ্ঠানের দশম পর্বে দেখানো ‘Rust’ বা লোহায় মরিচা পড়া এক্সপেরিমেন্টটি। আমরা সবসময় চকচকে জিনিসের প্রতি বেশি আকৃষ্ট হই। আর সেই বস্তুটা যদি ধাতব হয় তাহলে তার চকচকে ভাবটা আরো বেশি গুরুত্বপূর্ণ। সাধারণত লোহার তৈরি জিনিসপত্র খুব বেশিদিন চকচকে থাকেনা। কিন্তু কেন? মরিচা বা জং ধরাই এর একমাত্র কারণ। প্রশ্ন হলো লোহায় মরিচা ধরে কেন? এর উত্তর খুঁজতেই আমাদের এই এক্সপেরিমেন্ট।

যা যা লাগবেঃ

আমরা আমাদের প্রত্যকটা এক্সপেরিমেন্টে যে সব উপাদান ব্যবহার করি তা আমাদের হাতের কাছেই পাওয়া যায় । তবে এইবার আমরা আরও কিছু উপাদান ব্যবহার করবো তার জন্য হয়তো আমাদের ল্যাবরেটরির সাহায্য নিতে হবে। আমাদের দরকার টেস্ট টিউব স্ট্যান্ড, টেস্ট টিউব ৩টা, নতুন চকচকে পেরেক ৩টা, ডিস্টিলড ওয়াটার বা সম্পৃক্ত পানি, বয়েলড ওয়াটার বা ফুটানো পানি, তেল এবং শুষ্ক স্লেইড লাইম।

যেভাবে করবোঃ

প্রথমে আমরা স্ট্যান্ডে তিনটা টেস্টটিউব বসালাম। তিনটাতে তিনটি পেরেক ঢুকিয়ে দিলাম। এবার প্রথম টেস্টটিউবে ডিস্টিলড ওয়াটার, দ্বিতীয়টাতে বয়েলড ওয়াটার এবং তৃতীয়টায় কিছু শুষ্ক স্লেইড লাইম দিয়ে দিলাম। প্রথমটায় এমনভাবে পানি নিলাম যাতে পেরেকের একটু অংশ উপরে উঠে থাকে। দ্বিতীয়টায় এমনভাবে পানি নিলাম যেন পেরেক সম্পূর্ণ ডুবে থাকে এবং পানির উপর কয়েক ড্রপ তেল দিয়ে দিলাম। তৃতীয়টায় কোন পানি দিলাম না।

এবার তিনটা টেস্ট টিউবই কর্ক দিয়ে বন্ধ করে দেই। এই অবস্থায় এটিকে কয়েকদিন রেখে দিতে হবে। পাঁচ-ছয় দিন পর আমরা টেস্ট টিউবগুলো দেখলে দেখা যাবে প্রথম টেস্টটিউবের পেরেকটায় মরিচা(Rust) ধরেছে।

কেন হলোঃ

লোহায় মরিচা ধরা প্রকৃতপক্ষে একটি রাসায়নিক বিক্রিয়া। এর জন্য দরকার লোহা, পানি বা জলীয় বাষ্প এবং বাতাস(অক্সিজেন)। প্রথম টেস্ট টিউবে আমরা তিনটি উপাদানই রেখেছি। কিন্তু দ্বিতীয় টেস্ট টিউবে পানির উপরে আমরা তেলের একটা আস্তরণ দিয়েছি ফলে বাতাসের অক্সিজেন লোহার পেরেকের সংস্পর্শে আসতে পারেনি। তাই মরিচা ধরেনি। শেষ টেস্ট টিউবে আমরা দিয়েছি স্লেইড লাইম। পানি না দেওয়ার কারনে এবং স্লেইড লাইম বাতাসের জলীয় বাষ্প শুষে নেওয়াতে লোহার পেরেক পানি বা জলীয় বাষ্প কোনটির সংস্পর্শে আসতে পারেনি। ফলে এটিও মরিচাবিহীন থেকে যায়।

পোষ্টটি লিখেছেন: Muhammad Tuhin Miah

Muhammad Tuhin Miah এই ব্লগে 8 টি পোষ্ট লিখেছেন .

www.tuhinbd.me

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *