২০১৯ সালের এসএসসি সমমান পরীক্ষার পরিবর্তিত সময়সূচী জেনে নিন এখান থেকে

২০১৯ সালের এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার আট সাধারণ বোর্ডের এসএসসি, মাদ্রাসা বোর্ডের দাখিল ও কারিগরি বোর্ডের এসএসসি ও দাখিল ভোকেশনাল পরীক্ষা ২রা ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু হয়েছে।

১৩ ফেব্রুয়ারি ৮টি সাধারণ শিক্ষা বোর্ডের এসএসসি পরীক্ষা স্থগিত করা হয়েছে। অনিয়মিত পরীক্ষার্থীদের স্থগিত ক্যারিয়ার শিক্ষা পরীক্ষাটি আগামী ২ মার্চ দুপর ২টায় অনুষ্ঠিত হবে।

এদিকে মুদ্রণ ত্রুটির কারণে যশোর শিক্ষাবোর্ডের ১২ ফেব্রুয়ারির তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিষয়ের পরীক্ষা বাতিল করা হয়েছে। এ পরীক্ষাটি ২৮ ফেব্রুয়ারি তারিখে অনুষ্ঠিত হবে।

এর আগে বিশ্ব ইজতেমার কারণে সারাদেশে এসএসসি ও সমমানের তিনদিনের পরীক্ষা পেছানো হয়। ১৬, ১৭ ও ১৮ ফেব্রুয়ারির পরীক্ষাগুলো আগামী ২৬ ও ২৭ ফেব্রুয়ারি এবং ২ মার্চ অনুষ্ঠিত হবে। পরিবর্তিত সময়সূচী নিচে তুলে দেওয়া হলোঃ

২০১৯ সালের এসএসসি সমমান পরীক্ষার পরিবর্তিত সময়সূচী

 

 

 

সকালের পরীক্ষা ১০টা থেকে ১টা পর্যন্ত ও বিকালের পরীক্ষা দুপুর ২টা থেকে ৫টা পর্যন্ত অনুষ্ঠিত হবে। শিক্ষার্থীদের পরীক্ষা শুরুর ৩০ মিনিট পূর্বে অবশ্যই কেন্দ্রে উপস্থিত হয়ে আসনে বসতে হবে। ২০১৯ সালের এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার সময়সূচি আপনাদের সুবিধার্থে নিচে তুলে দেওয়া হলোঃ

এসএসসি সমমান পরীক্ষার সময়সূচি ২০১৯ ডাউনলোড

 

এসএসসি (মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট) পরীক্ষার সময়সূচি ২০১৯

 

এসএসসি ব্যবহারিক পরীক্ষার সময়সূচী ২০১৯

দাখিল পরীক্ষার সময়সূচি ২০১৯

এসএসসি ভোকেশনাল ফাইনাল পরীক্ষার সময়সূচি ২০১৯

দাখিল ভোকেশনাল ফাইনাল পরীক্ষার সময়সূচি ২০১৯

দৃষ্টি প্রতিবন্ধী, সেরিব্রাল পালসি জনিত প্রতিবন্ধী এবং যাদের হাত নেই এমন প্রতিবন্ধী পরীক্ষার্থী স্ক্রাইব (শ্রুতি লেখক) সঙ্গে নিয়ে পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করতে পারবে। এ ধরনের পরীক্ষার্থীদের এবং শ্রবণ প্রতিবন্ধী পরীক্ষার্থীদের জন্য অতিরিক্ত ২০ মিনিট সময় বৃদ্ধি করা হয়েছে।

প্রতিবন্ধী (অটিস্টিক, ডাউন সিনড্রোম, সেরিব্রালপালসি) পরীক্ষার্থীদের অতিরিক্ত ৩০ মিনিট সময় বৃদ্ধিসহ শিক্ষক/অভিভাবক/সাহায্যকারীর বিশেষ সহায়তায় পরীক্ষা প্রদানের সুযোগ দেয়া হয়েছে।

সারাদেশে অভিন্ন ও সৃজনশীল প্রশ্নপত্রে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। বাংলা দ্বিতীয় পত্র এবং ইংরেজি প্রথম ও দ্বিতীয় পত্র ছাড়া সকল বিষয়েও সৃজনশীল প্রশ্নে পরীক্ষা নেওয়া হচ্ছে। এবারও এমসিকিউ অংশের পরীক্ষা আগে অনুষ্ঠিত হবে। পরীক্ষার ফল প্রকাশের সাত দিনের মধ্যে এসএসসি ও সমমান ফলাফল পুনঃমূল্যায়ন এর জন্য টেলিটক প্রিপেইড সিম ব্যবহার করে এসএমএসের মাধ্যমে আবেদন করা যাবে।

এ বছর ২৮ হাজার ৬৮২টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের মোট ২১ লাখ ৩৫ হাজার ৩৩৩ জন শিক্ষার্থী অংশ নিচ্ছে। এর মধ্যে ছাত্র ১০ লাখ ৭০ হাজার ৪৪১ জন, ছাত্রী ১০ লাখ ৬৪ হাজার ৮৯২ জন। মোট পরীক্ষাকেন্দ্র ৩ হাজার ৪৯৭টি।

২০১৮ সালের তুলনায় ২০১৯ সালে মোট পরীক্ষার্থী বেড়েছে এক লাখ ৩ হাজার ৪৩৪ জন। এর মধ্যে ছাত্র ৪৭ হাজার ২২৯ জন এবং ছাত্রী ৫৬ হাজর ২০৫ জন। মোট প্রতিষ্ঠান বেড়েছে ১৩১টি। কেন্দ্র বেড়েছে ৮৫টি। নিয়মিত পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ১৭ লাখ ৪০ হাজর ৯৩৭ জন। অনিয়মিত পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ৩ লাখ ৯১ হাজার ৫৪ জন। বিশেষ পরীক্ষার্থীর সংখ্যা (১, ২, ৩ ও ৪ বিষয়ে) ৩ লাখ ৪২ হাজার ৮৩৯ জন। এবছর বিজ্ঞান বিভাগে ৫ লাখ ৪১ হাজর ৩৫৩ জন, মানবিকে ৭ লাখ ৭৫ হাজার ৩৪০জন, ব্যবসায় শিক্ষায় ৩ লাখ ৮৩ হাজার ৪০৯ জন। এছাড়া দেশের বাইরে জেদ্দা, রিয়াদ, ত্রিপলি, দোহা, দুবাইসহ ৮টি কেন্দ্র ৪৩৪ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশ নেবে। এর মধ্যে ছাত্র ১৯২, ছাত্রী ২৪২ জন।

পোষ্টটি লিখেছেন: আল মামুন মুন্না

আল মামুন মুন্না এই ব্লগে 617 টি পোষ্ট লিখেছেন .

আল মামুন মুন্না, বাংলাদেশের প্রথম শিক্ষা বিষয়ক বাংলা কমিউনিটি ব্লগ সাইট "লেখাপড়া বিডি"র প্রতিষ্ঠাতা ও পরিচালক হিসেবে নিয়োজিত আছেন। সম্প্রতি জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীন যশোর সরকারী এম. এম. কলেজ থেকে ফিন্যান্স এন্ড ব্যাংকিং বিষয় নিয়ে বি.বি.এ অনার্স ও আজম খান সরকারী কমার্স কলেজ থেকে এমবিএ করছেন।

10 comments

  1. Mcq age neyar siddanto Ta khub valo hoyche..Amader ekhaneu exam er somoy Sir ra agei mcq correction kore student der bole dei .Ei jonno student ra poDar agroho hariye fele.

  2. ধন্যবাদ,ssc পরীক্ষার রুটিন প্রকাশের জন্য। আমি ২০১৬ তে পরিক্ষার্থী।আমার জন্য দোয়া করবেন সকলে।

  3. ২০১৭সলের দা‌খিল গ‌নিত সা‌জেশন প্রক্ শ করুন

  4. ধন্যবাদ লেখাটা দেওয়ার জন্য, আর সকল এসএসসি সমমানের পরীক্ষার্থী ভাইবোনদের প্রতি রইল শুভ কামনা

  5. ভাইয়া আপনার লেখা পোষ্টটি খুব সুন্দর লাগলো। কিন্তু আমি কথা বলতে চাই সেটা হলো দাখিল পরিক্ষার ২০১৮ সালের একটা রুটিন নামানোর ডাউনলোডের সহজ একটা লিংক দিন।

  6. আল-আমিন

    আমি এই বারের পরীক্ষাথি
    এসএসসি ভোকেশনাল থেকে
    গণিত সাজেশন আমি পাই নি
    এই বিষয়ে কিছু ধানরা পেলে ভালো হতো

  7. ভাই এস এস সি ভোকেসনাল এর ২০১৮ সালের রুটিন চাই,,,

  8. জুবায়ের আহমেদ দশম শ্রেণী Karpashdanga BA Fajil Madrasha Damurhuda, Chuadanga

    ধন্যবাদ

  9. আমাদের শিক্ষার যে হাল তাতে খরাপ লাগে। কারণ আগামী দিনগুলো তে শিক্ষা দেওয়ার জন্য ভালো শিক্ষক পাওয়া যাবে কিনা এই জন্য টেনশন হয়। কারণ ছাত্ররা যে ভাবে অনলাইন আর ফোন ব্যবহার করছে তাতে আমাদের ছেলেমেয়েদের ভবিষ্যৎ জীবন হুমকি স্বরূপ

  10. সুন্দর একটি পোস্ট। লেখাপড়ার সকল পোস্ট সবার আগে আমাদের হাতে পৌছে দেওয়ার জন্য ধন্যবাদ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *