বিশ্বের সেরা বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর নতুন র‌্যাংকিং, আছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ও

বিশ্বের সেরা বিশ্ববিদ্যায়ল কোনগুলো তা নিয়ে বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান র‌্যাংকিং তৈরি করে। ২০১৩ সাল থেকে এ র‌্যাংকিং তৈরির কাজে যোগ দিয়েছে কিউএস নামে একটি প্রতিষ্ঠান। এ লেখায় তুলে ধরা হলো কিউএস-এর দৃষ্টিতে বিশ্বের সেরা কিছু বিশ্ববিদ্যালয়। এক প্রতিবেদনে বিষয়টি জানিয়েছে বিজনেস ইনসাইডার।

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়
কিউএস তালিকায় সারা বিশ্বের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর মাঝে এবার ৭০১ তম অবস্থায় রয়েছে। তবে এশিয়ার দেশগুলোর মধ্যে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ১০৯ তম অবস্থানে রয়েছে।
বাংলাদেশ থেকে একমাত্র ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ই এ তালিকায় স্থান পেয়েছে।
প্রতিষ্ঠানটি জানিয়েছে, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ৩৩ হাজার শিক্ষার্থী ও ১৮০০ শিক্ষক রয়েছেন। এছাড়া বিজ্ঞানের নানা ক্ষেত্রেও বিশ্ববিদ্যালয়টি গবেষণাকর্ম করে থাকে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ছয়টি অর্ধবার্ষিক ইংরেজি জার্নাল ও ১০ মাস পর পর একটি বাংলা জার্নাল প্রকাশিত হয়। এছাড়া বিভিন্ন বিভাগ থেকে আরও ১০টি জার্নাল প্রকাশিত হয়েছে। বিশ্ববিদ্যালয়ের ৮০ শতাংশ শিক্ষার্থী আন্ডারগ্র্যাজুয়েট ও ২০ শতাংশ শিক্ষার্থী পোস্টগ্র্যাজুয়েটে পড়াশোনা করে বলে জানানো হয়। বিশ্ববিদ্যালয়ের স্টাফ সংখ্যা ১৯৩২ জন বলে জানানো হয়েছে পরিসংখ্যানে।

বিশ্বের সেরা বিশ্ববিদ্যালয়- এমআইটি
বিশ্বের সেরা বিশ্ববিদ্যালয় হিসেবে উঠে এসেছে যুক্তরাষ্ট্রের ম্যাসাচুসেটস ইন্সটিটিউট অব টেকনোলজি (এমআইটি)। এ বিশ্ববিদ্যালয়ের ১১,০৬৭ জন শিক্ষার্থী ও অ্যাকাডেমিক ফ্যাকাল্টি স্টাফ হিসেবে স্থানীয় ২,৯৮২ জন ও আন্তর্জাতিক ১,৬৭৯ জন রয়েছেন। গবেষণাকর্মের দিক দিয়ে বিশ্ববিদ্যালটি অত্যন্ত অগ্রগামী। এছাড়া বিশ্ববিদ্যালয়ের ৪০ শতাংশ শিক্ষার্থী আন্ডারগ্র্যাজুয়েট ও ৬০ শতাংশ শিক্ষার্থী পোস্টগ্র্যাজুয়েটে পড়াশোনা করে বলে জানানো হয়। এ বিশ্ববিদ্যালয়ে আন্তর্জাতিক শিক্ষার্থীর সংখ্যা ৩,৭১৭ জন বলে জানানো হয়েছে পরিসংখ্যানে।

বিশ্বের সেরা বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর তালিকা
১. ম্যাসাচুসেটস ইন্সটিটিউট অব টেকনোলজি (এমআইটি) (যুক্তরাষ্ট্র)
২. স্ট্যানফোর্ড ইউনিভার্সিটি (যুক্তরাষ্ট্র)
৩. হারভার্ড ইউনিভার্সিটি (যুক্তরাষ্ট্র)
৪. ইউনিভার্সিটি অব কেমব্রিজ (যুক্তরাজ্য)
৫. ক্যালিফোর্নিয়া ইন্সটিটিউট অব টেকনোলজি (যুক্তরাষ্ট্র)
৬. ইউনিভার্সিটি অব অক্সফোর্ড (যুক্তরাজ্য)
৭. ইউনিভার্সিটি কলেজ লন্ডন (ইউসিএল) (যুক্তরাজ্য)
৮. সুইস ফেডারেল ইন্সটিটিউট অব টেকনোলজি (ইটিএইচ জুরিখ), (সুইজারল্যান্ড)
৯. ইমপেরিয়াল কলেজ লন্ডন (যুক্তরাজ্য)
১০. ইউনিভার্সিটি অব শিকাগো (যুক্তরাষ্ট্র)
১১. প্রিন্সটন ইউনিভার্সিটি (যুক্তরাষ্ট্র)
১২. ন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি অব সিঙ্গাপুর (এনইউএস), (সিঙ্গাপুর)
১৩. নানইয়াং টেকনোলজিক্যাল ইউনিভার্সিটি (সিঙ্গাপুর)
১৪. ইকোল পলিটেকনিক ফেডারেল ডে ল্যাউস্যানে (সুইজারল্যান্ড)
১৫. ইয়েল ইউনিভার্সিটি (যুক্তরাষ্ট্র)
১৬. কর্নেল ইউনিভার্সিটি (যুক্তরাষ্ট্র)
১৭. জনস হপকিনস ইউনিভার্সিটি (যুক্তরাষ্ট্র)
১৮. ইউনিভার্সিটি অব পেনসিলভানিয়া (যুক্তরাষ্ট্র)
১৯. ইউনিভার্সিটি অব এডিনবরা (যুক্তরাজ্য)
২০. কলম্বিয়া ইউনিভার্সিটি (যুক্তরাষ্ট্র)

পোষ্টটি লিখেছেন: Diluar Hussen

Diluar Hussen এই ব্লগে 7 টি পোষ্ট লিখেছেন .

Diluar Hussen was born on 24th july 1995 in LalaBazar, Sylhet, Bangladesh. He is a very simple person but he loves to accept challenges. He does strongly believe in luck that it can be changed only by hard works. He also believes that his honesty is to build himself and humanity is to build the society. He got very big dreams all about his country as well as our helpless people. He will disclose these very soon in public and start the mission. Keep him in your prayers and go ahead with your dreams, the almighty Allah is with you. Thank you very much and look after yourself. Where ever you are, be safe and plan for tomorrow..

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।