জাতীয় বিশ্ব বিদ্যালয়ের গাফলতি, বিড়ম্বনায় শিক্ষার্থীরা।

অনার্স ২য় বর্ষের মান উন্নয়ন ও গ্রেড উন্নয়ন পরীক্ষার্থীদের জন্য বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃক আবেদন ফরম পূরণের সময়সীমা নির্ধারন করা হয়েছিল ৫ থেকে ১৫ তারিখ পর্যন্ত। কিন্তু এখন পর্যন্ত তাদের ওয়েবসাইটে কোন ফরম পাওয়া যাচ্ছেনা। ফলে মারাত্মক বিড়ম্বনায় শিকার হচ্ছেন মানোন্নয়নে ইচ্ছুক শিক্ষার্থীরা।National University

বিশ্ববিদ্যালয়টির ওয়েবসাইটে লেখা আছে ” শিক্ষার্থী রেজিস্ট্রেশন নাম্বার দিয়ে নিজে ফরম পূরণ করবে , এর পর ব্যাংকে টাকা জমা দিয়ে টাকার রশিদ সহ বিভাগে জমা দিবে ” . উদ্বেগের বিষয় তারিখের দু দিন পেরিয়ে গেলেও ওয়েবসাইটে দেখা মিলছেনা এ সংক্রান্ত কোন ফরমের।

এটিকে জাতীয় বিশ্ব বিদ্যালয়ের চরম গাফলতি উল্লেখ করে ক্ষুদ্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেছেন ভুত্তভোগী শিক্ষার্থীরা।
শিক্ষার্থীদের দাবি জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের কর্মকর্তাদের অযোগ্যতা এবং অদক্ষতার কারণে বার বার বিড়ম্বনায় পড়ে যাচ্ছ তারা। এতে ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছে তাদের শিক্ষা জীবন।

চট্রগ্রাম কলেজের বিভিন্ন বিভাগ ঘুরে দেখা গেল কোন বিভাগেই ফরম জমা নিতে পারেনি উক্ত সমস্যাটির কারণে।
অনেক শিক্ষার্থী ২০১৩ সালের ফরম নিয়ে জমা দিতে চাইলেও তা গ্রহনযোগ্য হবেনা বলে ফিরিয়ে দিয়েছেন সংশ্লিষ্ট সহকারীরা।

আজ ফরম পূরণ করতে পারছেননা বলে আপনি কি কোন ধরনের ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছেন..? এমন প্রশ্ন রেখেছিলাম কয়েকজন ছাত্রীর কাছে। তাদের অনেকটা কান্নাজড়িত কণ্ঠে জবাব, ভাইয়া ফরম পূরণ করতে হবে বলে গুরুত্বপূর্ণ কাজ ফেলে প্রায় ২০ মাইল দূরত্বের পথ পাড়ি দিয়ে আসলাম কলেজে। কিন্তু এসে দেখছি ফরম পূরণ সম্ভব হচ্ছেনা, এখন ফিরে যাওয়া ছাড়া উপায় নাই।

এদিকে এ সমস্যা কবে নাগাদ সামাধান হবে তা জানাতে পারেনি কেউ।

পোষ্টটি লিখেছেন: Delwar-salim

এই ব্লগে এটাই এর প্রথম পোষ্ট.

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।